মোরেলগঞ্জে ছেলের হাতে ‘বাবা খুন’

murderসোমবার (১৩ এপ্রিল) ভোরে উপজেলার নিশানবাড়িয়া ইউনিয়নের জিউধরা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত হাবিবুর রহমান হাওলাদার (৫৮) জিউধরা গ্রামের প্রয়াত জিন্নাত হাওলাদারের ছেলে।

ঘটনার পর থেকে পলাতক রয়েছে হাবিবুর রহমানের ছেলে জাহিদুল হাওলাদার (১৫)।

নিহতের স্ত্রী সুফিয়া বেগম সাংবাদিকদের জানান, রবিবার (১২ এপ্রিল) রাতে তাদের স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়াঝাটি হয়। এক পর্যায়ে স্বামী হাবিবুর রহমান তাকে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে আহত করে। এ সময় পুরো বিষয়টি ছেলে জাহিদ প্রত্যক্ষ করে।

জাহিদুলের মামা নিশানবাড়িয়া ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ড (স্থানীয় ইউপি) সদস্য আব্দুল সালাম মৃধা বাগেরহাট ইনফো ডটকমকে জানান, হাবিবুরের সঙ্গে তার স্ত্রী সাফিয়া বেগমের পারিবারিক বিষয় নিয়ে প্রায়ই ঝগড়া বিবাদ লেগে থাকত। সোমবার ভোরে আবারো তাদের মধ্যে ঝগড়া হয়।

‘উভয়ের মধ্যে বাকবিতণ্ডার এক পর্যায়ে হাবিব ক্ষুব্ধ হয়ে ঘরে থাকা ধারালো ‘দা’ দিয়ে তার স্ত্রী সাফিয়াকে কোপাতে তেড়ে যান।’

এ সময় ঘরে থাকা তাদের ছেলে জাহিদ ক্ষিপ্ত হয়ে ওই দা’ কেড়ে নিয়ে বাবার ঘাড়ে কোপ দিয়ে ঘর থেকে বেরিয়ে যান। পরে তাকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে হাবিবুরে মৃত্যু হয় বলে জানান তিনি।

মোরেলগঞ্জ থানার লক্ষ্মীখালী পুলিশ ক্যাম্পের উপ-পরিদর্শক (এসআই) আবু সুফিয়ান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. রফিকুল ইসলাম বাগেরহাট ইনফো ডটকমকে বলেন, পিতাকে হত্যার অভিযোগে ছেলে জাহিদ হাওলাদারকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

সোমবার দুপুরে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে লাশের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়েছে।

১৩ এপ্রিল ২০১৫ :: স্টাফ ও উপজেলা করেসপন্ডেন্ট,
বাগেরহাট ইনফো ডটকম।।
এস/আই হকএনআর এ/বিআই
বাগেরহাট ইনফো নিউজWriter: বাগেরহাট ইনফো নিউজ (1300 Posts)