নির্ধারিত সময়ে শেষ হবে রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্রের নির্মাণ

Bagerhat-Pic-1(22-10-2015)Rampel-Plantবাগেরহাটের রামপালে বাংলাদেশ-ভারত যৌথ উদ্যোগে নির্মাণাধীন ১৩২০ মেগাওয়াট মৈত্রী সুপার থারমাল পাওয়ার প্লান্ট নির্মাণ কাজ নির্ধারিত সময়ে শেষ করা হবে বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রীর মূখ্য সচিব মো. আবুল কালাম আজাদ।

বৃহস্পতিবার (২২ অক্টোবর) বিকালে নির্মাণাধীন রামপালে তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্র পরিদর্শন শেষে স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, জনপ্রতিনিধি ও সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, অত্যাধুনিক প্রযুক্তি ব্যাবহারের জন্য রামপাল তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্র পরিবেশের কোন ক্ষতি করবে না। বরং জাতীয় অগ্রগতিতে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে এই বিদ্যুৎ।

বর্তমান সরকার সুন্দরবনের দিকে লক্ষ্য রেখেই এ অঞ্চলের মানুষের উন্নয়নের জন্য নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, মংলা বন্দরের আধুনিকায়ন, রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র, বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চলসহ বাগেরহাটে উন্নয়নে সরকার মেগা উন্নয়ন প্রকল্প  গ্রহন করেছে। ২০১৯ সালের মধ্যে এসব প্রকল্পের কাজ শেষ হলে দেশ অর্থনৈতিক ভাবে আরো সমৃদ্ধ হবে।

 উন্নয়ন অগ্রগতি দেখতে ১১ সচিব বাগেরহাটে

স্থানীয় সংসদ সদস্য তালুকদার আব্দুল খালেক বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী সুন্দরবনের কোন ক্ষতি করতে পারে না। মংলা বন্দরকে আধুনিকায়ন, শিল্প জোন প্রতিষ্ঠাসহ এসব কর্মকান্ড বাস্তবায়ন হলে ব্যাপক কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হবে।

এসময় জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান মো. নজিবুর রহমান বলেন, এই অঞ্চলের শিল্প উন্নয় হলে রাজস্ব আদায় বৃদ্ধি পাবে। যা দেশের উন্নয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে।

Bagerhat-Pic-1(22-10-2015)এর আগে প্রতিনিধি দলের সদস্যবৃন্দ মংলা-ঘষিয়াখানি নৌ-চ্যানেল, মংলা সমুদ্র বন্দর পরিদর্শন ও বন্দর কর্তিপক্ষের সাথে মতবিনিময়, মংলা সাইলো, সুন্দরবনের করমজন এলাকা পরিদর্শন এবং সংশ্লিষ্টদের সাথে কাথা বলেন।

ঘষিয়াখানি চ্যানেল পরিদর্শণকালে প্রতিনিধি দলের প্রধান মূখ্য সচিব মো. আবুল কালাম আজাদ সাংবাদিকদের বলেন, সরেজমিন পরিদর্শণ করলে স্থানীয় সমস্যা ও সম্ভাবনা গুলো সহজে চি‎হ্নিত করা সম্ভব হয়। এ জন্য সরকারের বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তাদের বাগেরহাটে এই সফর।

১৩টি মেগা প্রকল্প পরিদর্শনে উপকূলীয় জেলা বাগেরহাটে প্রধানমন্ত্রীর মূখ্য সচিব আবুল কালাম আজাদ-এর নেতৃত্বে ১১ সচিবসহ বিভিন্ন মন্ত্রণারয়ের ৫৩ জন শীর্ষ কর্মকর্তা বৃহস্পতিবার থেকে দু’দিনের সফর করেছেন।

 প্রকল্প পরিদর্শনে বাগেরহাট আসছেন ১১ সচিব

বানিজ্য সচিব হেদায়েতুল্লাহ আল মামুন, নৌ-পরিবহন মন্ত্রনালয়ের সচিব শফিক আলম মেহেদী, বিদ্যুৎ জ্বালানী ও খনিজ সম্পদ সচিব মনোয়ার ইসলাম, বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষ সচিব পবন চৌধুরী, রেল সচিব মো: ফিরোজ সালাহ উদ্দিন, বেপজা চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল মো: হাবিবুর  রহমান খান, বাংলাদেশ পর্যটন কর্পোরেশনের চেয়ারম্যান অপরুপ চৌধুরীসহ প্রায় এক ডজন সচিব এবং বিভিন্ন দপ্তরের উধ্বর্তন কর্মকর্তারা এসময় উপস্থিত ছিলেন।

প্রতিনিধি দলটি শুক্রবারও বাগেরহাটে অবস্থান করে জেলার বিভিন্ন সরকরি উন্নয়ন প্রকল্প পরিদর্শণ ও কাজের অগ্রগতি নিয়ে আলোচনা সভায় অংশ নেবেন বলে জেলা প্রশাসক মো জাহাংগীর আলম জানিয়েছেন।

২২ অক্টোবর :: সিনিয়র স্টাফ করেসপন্ডেন্ট,
বাগেরহাট ইনফো ডটকম।।
এস/আইএইচ/এনআরএ/বিআই
বাগেরহাট ইনফো নিউজWriter: বাগেরহাট ইনফো নিউজ (1304 Posts)