আওয়ামী লীগের দু’গ্রুপের সংর্ঘষে গুলিবিদ্ধ ২০

বাগেরহাটের চিতলমারীতে একটি বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দু’গ্রুপের সংঘর্ষ  ও গুলিতে কমপক্ষে অর্ধশতাধিক আহত হয়েছে।

এর মধ্যে কমপক্ষে ২০ জন গুলিবিদ্ধ। মঙ্গলবার বিকেলে এ  সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। আহতদের গোপালগঞ্জ সদর, টুঙ্গীপাড়া ও খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এদিকে ঘটনার পর পুনরায় সংঘর্ষের আশঙ্কায় এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

চিতলমারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. মনিরুজ্জামান জানান, উপজেলার নালুয়া এলাকার জোনাব আলী বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের বিদ্যোৎসাহী সদস্য (পরিচালনা কমিটি) নির্বাচনকে কেন্দ্র করে উপজেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি মাহাত উদ্দিন ও উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম সম্পাদক তরিকুল ইসলাম বিপ্লব গ্রুপের মধ্যে তর্কবির্তকের জের ধরে বাদশা নামের একজনকে মারপিটের ঘটনা ঘটে।

এর জের ধরে উভয় গ্রুপের মধ্যে সংর্ঘষের এক পর্য়ায়ে কয়েক রাউন্ড গুলিবিনিময় হয়। উভয় গ্রুপের আহত গুলিবিদ্ধের মধ্যে ইলাহি সিকদার (৪৫), মনির শেখ (৩০), আবুল ফকির (৪২), ইয়াহিয়া ফকির (৩৮) ও আউয়াল শেখের (৩৫) অবস্থা আশঙ্কাজনক। অন্যদের পরিচয় জানা যায়নি।

এ ব্যপারে তরিকুল ইসলাম বিপ্লব জানান, হাটের দিনে হাটে যাওয়া লোকজনের উপর মাহাতাব ও রমজানের লোকজন অতর্কিত হামলা চালিয়ে এই রক্তক্ষয়ী ঘটনা ঘটিয়েছে।

মাহাতা বুজ্জামান জানান, বিপ্লব ফকির ও আলী পুলিশের লোকজন বিনা উষ্কানিতে এই ন্যাক্কারজনক হামলা চালিয়েছে। তিনি আরো জানান, চিতলমারী থানা পুলিশের গাফিলতির কারণেই এত লোক আহত ও গুলিবিদ্ধ হয়েছে।

এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত এলাকার সাধারণ মানুষ পুনরায় সংঘর্ষের আতংকে ভীতসন্ত্রস্ত রয়েছে। বর্তমানে ওই এলাকায় পুলিশ মোতায়েনের পর পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে।

১৪.০৫.১৩ :: বাগেরহাট ইনফো ডটকম।।

ইনফো ডেস্কWriter: ইনফো ডেস্ক (1855 Posts)