শিক্ষকের হাতে ম্যানেজিং কমিটির সদস্য লাঞ্চিত, সাময়িক বরখাস্ত

বাগেরহাটের শরণখোলার রায়েন্দা পাইলট হাইস্কুলের কারিগরি শাখার সহকারী শিক্ষক কামাল হোসেন ওরফে টর্ণেডো কামালের হাতে একই বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সদস্য ফারুক তালুকদার লাঞ্চিত হওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এদিকে এঘটনায় ওই শিক্ষককে সাময়িক ভাবে বরখাস্ত করা হয়েছে।
সোমবার দুপুরে বিদ্যালয়ের অফিস কক্ষে অনাকাঙ্খিত এ ঘটনার পর স্কুল পরিচালনা পরিষদের জরুরী এই সিদ্ধান্ত গ্রহন করা হয়েছে।
জানাগেছে, বিদ্যালয়ের এক ছাত্রের ফরম পুরনকে কেন্দ্র করে কমিটির সদস্য ও শিক্ষকের মধ্যে মৃদু কথা কাটাকাটি হয়। এসময় উত্তেজিত শিক্ষক ওই সদস্যকে লাঞ্চিত করে।
ঘটনার পরপরই ম্যানেজিং কমিটির তাৎক্ষণিক এক জরুরী সভায় উচ্ছৃঙ্খল ওই শিক্ষককে সাময়িকভাবে বরখাস্ত হয়েছে। এর আগেও ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে বিদ্যালয়ের ছাত্রীদের সঙ্গে অসদাচরণসহ একাধিক অভিযোগ রয়েছে বলে জানা গেছে।
ম্যানেজিং কমিটির সদস্য মো. ফারুক তালুকদার অভিযোগ করে বলেন, আমি এবং ম্যানেজিং কমিটির অপর সদস্য মো. আবু বকর সুপারিশ করে পরীক্ষার নির্ধারিত ফি থেকে কিছু টাকা মওকুফ করিয়ে কারিগরি শাখার ১০ম শ্রেণির দরিদ্র মেধাবী ছাত্র মো. হাসিব মোল্লার ফরম পুরণ করাই। বিষয়টি নিয়ে অফিস কক্ষে বসে একই শাখার শিক্ষক জাহাঙ্গীর হোসেনের সঙ্গে আমি আলোচনা করছিলাম।
এসময় শিক্ষক কামাল হোসেন এসে বলেন তিনিই ওই ছাত্রের ফরম পুরণের টাকা মওকুফ করিয়েছেন বলে দাবি করেন। তার এ কথার প্রতিবাদ করলে তিনি আমার সাথে অসৈজন্য মূলক আচরন করে। এর আগে ওই শিক্ষক বিদ্যালয়ের একাধিক শিক্ষককের সাথে এ ধরনের আচরন করে পার পেয়ে গেছেন।
এদিকে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বিদ্যালয়ের একাধিক শিক্ষক বাগেরহাট ইনফোকে জানান, শিক্ষক কামাল হোসেনের অপকর্মের মাত্রা ছাড়িয়ে গেছে। তিনি কথায় কথায় শিক্ষকদের দেখে নেওয়ার হুমকি দেন।
এবিষয়ে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. মোতাহার হোসেন বাগেরহাট ইনফোকে জানান, ম্যানেজিং কমিটির একজন সদস্যের সাথে অনাকাংখিত ঘটনার পরে তাৎক্ষণিকভাবে ম্যানেজিং কমিটির এক জরুরী সভায় তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।
বিষয়টি নিয়ে অভিযুক্ত শিক্ষক কামাল হোসেনের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ম্যানেজিং কমিটির ওই সদস্যর সাথে সামান্য ভুলবোঝা হয়েছে।
০৭ অক্টোবর ২০১৩ :: মহিদুল ইসলাম, শরণখোলা প্রতিনিধি,
বাগেরহাট ইনফো ডটকম।।

এমআই/এসআইএইচ-নিউজ ডেস্ক/বিআই

ইনফো ডেস্কWriter: ইনফো ডেস্ক (1855 Posts)