মোরেলগঞ্জে ভাইচ চেয়ারম্যান প্রার্থীর দু’পায়ের রগ কর্তন

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে বিএনপি নেতা ও উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ভাইচ চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুল মান্নান খান ওরফে মনা খাঁ (৫৫) এর দু’ পায়ের রগ কেটে দিয়েছে দূর্বৃত্তরা।

Bagarhat-mapশুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে উপজেলার পোলেরহাট বাজর এলাকায় এঘটনা ঘটে।

আহত আব্দুল মান্নান খান মোরেলগঞ্জ উপজেলার রামচন্দ্রপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান এবং উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে মোরেলগঞ্জ থেকে ‘তালা’ প্রতীক নিয়ে ভাইচ প্রার্থী।

স্থানীয় সূত্র জানায়, উপজেলার পোলেরহাট বাজারে নির্বাচনী গনসংযোগ শেষে একটি দোকানে বসে চা খাচ্ছিলেন মান্নান খান। এ সময় ১০-১২জনের একটি সন্ত্রাসী দল তাকে ধাওয়া করলে তিনি দৌড়ে পার্শ্ববর্তী পুকুরে পড়ে যান।

পুকুর থেকে তাকে তুলে একটি ক্লাব ঘরে নিয়ে দু’পায়ের রগ কেটে রাস্তার ওপর অচেতন অবস্তায় তাকে ফেলে চলে যায় তারা (দুর্বৃত্তরা)।

খবর পেয়ে স্থানীয়দের সহায়তায় নিকটস্থ পোলেরহাট ফাঁড়ি পুলিশ তাকে উদ্ধার করে প্রথমে বাগেরহাট সদর হাসপাতালে এবং পরে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতারে ভর্তি করে।

বাগেরহাট সদর হাসপাতালে কর্তব্যরত চিকিৎসক (ডিউটি ডাক্তার) তপতি পোদ্দার বাগেরহাট ইনফো ডটকমকে জানান, আব্দুল মান্নান খানের দু’ পায়ের রগ কেটে দেওয়া হয়েছে। অবস্থার অবনতি হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

মোরেলগঞ্জ পৌর বিএনপির সভাপতি আব্দুল মজিদ জব্বার বাগেরহাট ইনফোকে বলেন, আব্দুল মান্নান খান ওরফে মনা খাঁ উপজেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং উপজেলা নির্বাচনে বিএনপির বিদ্রহী ভাইচ চেয়ারম্যান প্রার্থী। ‘রাজনৈতিক প্রতিপক্ষরা’ মান্নানের ওপর হামলা করে থাকতে পারে বলে তিনি মন্তব্য করেন।

মনা খাঁ বাগেরহাট হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সাংবাদিকদের জানান, ‘‘জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি ও  সাবেক প্রতিমন্ত্রী ডা. মোজাম্মেল হোসেন এমপি’র প্রাক্তণ এপিএস ও নাতি জাপান বাবুল এবং দৈবজ্ঞহাটি ইউপি চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম ফকিরের নেতৃত্বে তাদের সন্ত্রাসী বাহিনী পোলেরহাট বাজারে গনসংযোগ কালে আমাকে ধরে মারপিট করে দুই পায়ের রগ কেটে দেয়।”

এরাই ২০০৪ সালে আমার বড় ভাই রামচন্দ্রপুর ইউপি’র সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুর রশিদ খাঁনকে নব্বই রশ্মি বাস ষ্ট্যান্ডে প্রকাশ্যে গুলি করে হত্যা করে বলেও অভিযোগ করেন তিনি।

এব্যাপারে বাগেরহাটের পুলিশ সুপার (এসপি) মো: নিজামুল হক মোল্যা বাগেরহাট ইনফো ডটকমকে জানান, ঘটনার পর মোরেলগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুর রকিব খান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন এবং তল্লাশি চালিয়ে পুকুর থেকে একটি অস্ত্র (পিস্তল) ও ৪ রাউন্ড গুলি উদ্ধার কারা হয়েছে।

এই ঘটনায় স্থানীয় হায়দার আলী বাদী হয়ে মোরেলগঞ্জ থানায় অস্ত্র আইনে আব্দুল মান্নান ওরফে মনা খাঁর বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেছে।

এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত গুরুতর আহত আব্দুল মান্নান খাঁন জীবণ-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে পুলিশী হেফাজতে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তার অবস্থা শংকামুক্ত নয় বলে হাসপাতাল সূত্র জানায়।

এ ঘটনায় এলাকায় চরম আতংক বিরাজ করছে।

প্রসংঙ্গত, উপজেলা নির্বাচনের তৃতীয় দফায় আগামী ১৫ মার্চ মোরেলগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ভোট হওয়ার কথা।

২৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ :: নিউজরুম এডিটর,
বাগেরহাট ইনফো ডটকম।।
এসআই হক নিউজ ডেস্ক/বিআই/আপডেট
বাগেরহাট ইনফো ডেস্কWriter: বাগেরহাট ইনফো ডেস্ক (1853 Posts)