রক্ষনাবেক্ষনের অভাবে উপড়ে পড়েছে ঐতিহ্যবাহি পচা দিঘির পাড়ের প্রায় শত বছরের ৩টি গাছ

বাগেরহাটের ঐতিহ্যবাহি পচা দিঘির পাড়ের প্রায় শত বছরের ৩টি গাছ রক্ষনাবেক্ষনের অভাবে দিঘির মাঝে পড়ে গিয়ে।

BagerhatNews08.07.13রক্ষনাবেক্ষণের অভাব ও প্রশাসনের উদাসীনতাকে দায়ী করেছেন এলাকাবাসি।

খানজাহান আলী (র:) মাজার দরগার দিঘি ও ষাটগুম্বজ মসজিদ সংলগ্ন ঘোড়া দিঘির সমসাময়িক এই পচা দিঘি। এই দিঘির পাড়ের রোপনকৃত সারিসারি গাছ গুলো সৌন্দর্য বর্ধনের পাশাপাশি পরিবেশ রক্ষা ও পথচারিদের নির্মল ছায়ায় মুগ্ধ করে আসছিল। কিন্তু সরকারি ব্যবস্থপনায় লিজ প্রথা চালু করার পর মাছ চাষ করার ফলে দিঘির পানির তোড়ে চারিদিকের পাড়ের মাটি ধস শুরু করে।

একদিকে পানি, অন্যদিকে রাস্তার ফলে প্রায় ১০ লাখ টাকা মুল্যের গাছ গুলর এ অবস্থা বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা।

বাগেরহাট সদর উপজেলার বাদেকাড়া গ্রামের ইদ্রিস আলী জানান, গত এক সপ্তাহের মধ্যে তিনটি গাছ উপড়ে দিঘির মধ্যে পড়ে যায়।

একই এলাকার শেখ রফিকুল ইসলাম মিন্টু বাগেরহাট ইনফোকে বলেন,‘আমার বাবা মরহুম শেখ কাসেম আলী এই দিঘির পাড়ে এই গাছগুলি সারিবদ্ধ ভাবে রোপন করেন। গাছগুলোর বয়স প্রায় ৭০/৮০ বছর। দিঘির লিজা প্রথা চালু করায় গাছগুলো রক্ষনাবেক্ষনের অভাবে গাছের গোড়ায় মাটি সরে গিয়ে উপড়ে পড়েছে। দ্রুত পাইলিং না করা হলে অন্য গাছগুলোর অবস্থা একই পরিনতি হতে পারে।’

এ অবস্থায় বাগেরহাট-রামপাল সড়কের বেশ কয়েটি স্থানে ফাটল ও গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। ফলে বিঘ্ন ঘটছে যান চলাচলে।

আর এখনই ব্যাবস্থা গ্রহন করা না হলে কোন সময় উপড়ে পড়ে যেতে পারে দিঘির পাড়ের সৌন্দর্য বর্ধনকারী অন্য গাছ গুলোও। ফলে বন্ধ হয়ে যেতে পারে বাগেরহাট -রামপাল সড়কের যোগাযোগ ব্যবস্থা।

বাগেরহাট অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মো. ওবায়দুর রহমান দিঘির পাড়ের ৩ টি মূল্যবান গাছ উপড়ে পড়ে যাওয়ার কথা স্বীকার করে বাগেরহাট ইনফোকে জানান, উধ্বর্তন কর্তৃপক্ষের নির্দেশ পেলে পড়ে যাওয়া গাছগুলো নিলামে দেওয়ার জন্য প্রয়েজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

০৮ জুলাই ২০১৩ :: অ্যাক্টিং নিউজ করেসপন্ডেন্ট,
বাগেরহাট ইনফো ডটকম।।

ইনফো ডেস্কWriter: ইনফো ডেস্ক (1855 Posts)