বৃষ্টিতে নিন্মাঞ্চল প্লাবিত, মংলা বন্দরে পণ্য ওঠানামা বন্ধ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাগেরহাট ইনফো ডটকম

নিম্নচাপের কারণে দুই দিনের টানা বৃষ্টিতে উপকূলীয় জেলা বাগেরহাটের বিভিন্ন এলাকা প্লাবিত হয়েছে। ভারি বৃষ্টিতে বন্ধ রয়েছে মংলা বন্দরে পণ্য ওঠানামার কাজ।

কৃষি বিভাগের হিসেবে, গত ২৪ ঘণ্টায় জেলায় ১২৫ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে।

বৃষ্টির পানিতে বাগেরহাট শহরের রাহাতে মোড়, লোকাল বোর্ডঘাট, মেইনরোড, বাসাবাটি, রেলরোড, আলীয়া মাদ্রাসারোড, খারদ্বার, মিঠাপুকুরপাড়, সাহাপাড়াসহ বিভিন্ন এলাকার রাস্তাঘাট তলিয়ে রয়েছে। পাশাপাশি জেলার নয়টি উপজেলার নিচু এলাকাও বৃষ্টির পানিতে প্লাবিত হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে।

বৃষ্টির কারণে বিপাকে পড়েছেন নিম্ন আয়ের মানুষ। শহরের বাসাবাটি এলাকার রিক্সাচালক মধু মন্ডল বলেন, বৃহষ্পতিবার থেকে মুষলধারে বৃষ্টি হচ্ছে। বৃষ্টিতে শহরের অধিকাংশ সড়কে পানি জমে গেছে। খুব একটা কেউ ঘর থেকে রাস্তায় বের হচ্ছেন না। এ কারনে কোন আয় নেই।

মংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের হারবার মাষ্টার মো. ওয়ালিউল্লাহ বলেন, বন্দরে তিন নম্বর সংকেত চলছে। বন্দরে বর্তমানে সার, চাল, কন্টেইনার, এলপিজি গ্যাসসহ মোট ১০টি জাহাজ অবস্থান করছে। বৃষ্টির মধ্যে এসব জাহাজে পণ্য ওঠানামার কাজ বন্ধ রয়েছে।

বাগেরহাট কৃষি সম্প্রসারণ বিভাগের উপপরিচালক মো. আবতাব উদ্দিন বলেন, গত ২৪ ঘণ্টায় ১২৫ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। বর্তমানে নষ্ট হওয়ার মত কোন ফসল এখন মাঠে নেই। বরং এই বৃষ্টিতে রোপা আমনের মাঠের উপকার হচ্ছে।

এদিকে, নিম্নচাপের প্রভাবে বৈরী আবহাওয়ার কারণে সারা দেশে ছোট আকারের লঞ্চ চলাচল বন্ধ রাখতে বলেছে অভ্যন্তরীণ নৌ চলাচল কর্তৃপক্ষ- বিআইডব্লিউটিএ।

Image may contain: one or more people and outdoorবঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট নিম্নচাপটি স্থলভাগে উঠে আসায় দেশের বিভিন্ন স্থানে বৃহস্পতিবার থেকেই বৃষ্টি চলছে, যা শনিবার সকাল পর্যন্ত অব্যাহত থাকতে পারে বলে আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে। 

বিরূপ আবহাওয়ায় সাগর উত্তাল থাকায় দেশের সমুদ্র বন্দরগুলোর জন্য তিন নম্বর সতর্কতা সংকেত বহাল রাখা হয়েছে আবহাওয়ার সর্বশেষ বুলেটিনে।

উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত সব মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলারকে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত নিরাপদ আশ্রয়ে থাকতে বলা হয়েছে।

এজি//এসআই/বিআই/২০ অক্টোবর, ২০১৭

বাগেরহাট ইনফো নিউজWriter: বাগেরহাট ইনফো নিউজ (1300 Posts)