রুবেল বিয়ে করছেন মুণিগঞ্জে !

Rubel-Hosain-Picবাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের আলোচিত পেসার রুবেল হোসেনে বিয়ে! না এখনই চূড়ান্ত নয়। তবে পাত্রী পছন্দের দিকটা চূড়ান্ত প্রায়।

পাত্রীর বাড়ি বাগেরহাট শহরের মুণিগঞ্জ মালোপাড়া এলাকায়।

কোনও চিত্রনায়িকা নয়, নয় কোনও নামী-দামী কারও মেয়েও। নিজ শহরের এক সাধারণ মেয়েকেই বউ করে ঘরে আনতে যাচ্ছেন জাতীয় ক্রিকেট দলের অন্যতম সেরা এই পেস বোলার রুবেল হোসেন।

পারিবারিক ভাবে রুবেলের বাবা-মা পাত্রী পছন্দের বিষয়টি চুড়ান্ত করেছেন বলে নিশ্চিত খবর আছে বাগেরহাট ইনফো ডটকম এর কাছে। এখন চলছে বিয়ের কথা-বার্তা। জানা গেছে, বাবা-মা উদ্যোগী হয়েই এই বিয়ের ব্যবস্থা নিচ্ছেন।

ক্রিকেটের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ একাধিক সূত্র বলছে, রুবেলও বাবা-মায়ের মতের ওপর আস্থা রেখেই বিয়ে করবেন এমন সিদ্ধান্তে রয়েছেন। পাশাপাশি নিজ শহর বাগেরহাটেই বিয়ে করার পক্ষে মত তার।

রুবেল বাগেরহাট পৌর শহরের নাগের বাজার সংলগ্ন পূর্ব বাসাবাটি এলাকার সিদ্দিকুর রহমানের ছেলে। একই শহরের অন্য অংশ মুণিগঞ্জ।

সূত্র বলছে, সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ টেস্টের পরই বিয়ে করতে যাচ্ছেন রুবেল।

রুবেলের বিয়ের খবর ছড়িয়ে পড়লে এর সত্যতা নিশ্চিতে বাগেরহাট ইনফো ডটকম যোগাযোগ করেছে তার পরিবারের সঙ্গে।

রুবেলের মা রবেজান বিবি অবশ্য বিয়ের খবরের বিষয়টি অস্বীকার করেন নি।

প্রথমে তিনি বলেন, ‘না, ও একটা গুজব উঠাইছে। একটা মেয়ের কথা বলছিলাম আর কি। তার পর ও বলছে, আমার দেরি আছে।’ এখন বিয়ের বিষয়ে চিন্তা নেই বলে ছেলে জানিয়েছে।

কথা প্রসঙ্গে পরে অবশ্য তিনি বলেন, ‘একটা মেয়ের কথা বলছিলাম। ও (রুবেল) বলছে যে, আমার খেলাধুলা যাবে তার পরে।’

পাত্রীর পরিচয় জানার চেষ্টা করলে রুবেলের মা বলেন, ‘যেটা শুনছেন, ওই ডাই আর কি বলছিলাম আমরা।’

খেলা শেষ না হওয়া পর্যন্ত ছেলে মাথার বিয়ের টেনশন নিতে চান না বলেও মুঠোফোনে জানান তিনি।

এদিকে অপর একটি সূত্র বলেছ, এরই মধ্যে বিয়ের পাত্রী এক দফা রুবেলের পূর্ব বাসাবাটির বাড়ি ঘুরে গেছেন। আর পাকিস্তানের বিরুদ্ধে সিরিজ চলা কালে কোন এক দিনে তার পরিবারের পক্ষ থেকে কয়েকজন আনুষ্ঠানিকভাবে পাত্রীও দেখে এসেছেন।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে বাগেরহাটে রুবেলের ঘনিষ্ঠ এক বন্ধুও জানিয়েছেন, বাগেরহাটেই বিয়ে করছেন রুবেল। এই বন্ধুটির সঙ্গে রুবেল হোসেন একসঙ্গে ক্রিকেট খেলা শুরু করেন। জাতীয় দলে স্থান করে নিলেও বাগেরহাটে গেলে তারা এক সাথে থাকেন তার।

এদিকে, বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিতের জন্য সরেজমিনে মুণিগঞ্জ মালোপাড়া এলাকায় গিয়েও পাত্রীর পরিবারের কারো সাথে যোগাযোগ করা সম্ভব হয় নি। তবে, স্থানীয় বেশ কয়েক জন তরুণ রুবেল হোসেনের সাথে এই এলাকারই (নাম উল্লেখ করে) এক মেয়ের সাথে বিয়ে হচ্ছে বলে বাগেরহাট ইনফো  ডটকমকে জানিয়েছেন।

গত এক সপ্তাহ ধরে তারা এমন খবর শুনছেন বলে জানান সম্ভাব্য পাত্রীর বাড়ির পাসের কয়েক প্রতিবেশি।

হ্যাপীর খোলাচিঠি প্রসঙ্গ
এদিকে আলোচিত মডেল নাজনীন আক্তার হ্যাপি বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের পেসার রুবেলের কাছে খোলা চিঠি লিখেছেন। শনিবার রাত সাড়ে দশটায় নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে এই চিঠি পোস্ট করেন তিনি।

০৩ মে ২০১৫ :: সিনিয়র স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট,
বাগেরহাট ইনফো ডটকম।।
এজি/আই হকএনআর এ/বিআই
বাগেরহাট ইনফো নিউজWriter: বাগেরহাট ইনফো নিউজ (1300 Posts)