বাগেরহাটের মহাসড়কে আবারও বেড়ে গেছে ছোট গাড়ী ছিনতাই এর ঘটনা

বাগেরহাট-মোংলা ও বাগেরহাট-খুলনা মহাসড়কে আবারও বেড়ে গেছে চালককে অজ্ঞান করে ইজি বাইক, মহেন্দ্র গাড়ী ছিনতাই এর ঘটনা। গত এক সপ্তাহে ৪টি ইজিবাইক মহেন্দ্র ও নছিমুন ছিনতাই এর খবর পাওয়া গেছে।
সবশেষ গতকাল (শনিবার) রাতে যাত্রীবেশী অজ্ঞানকারী দুর্বৃত্ত চক্রের শিকার হয়েছেন বাগেরহাট সদর উপজেলার মরগা এলাকার সলেমান সেখের পুত্র ইজিবাইক চালক মোঃ দেলোয়ার হোসেন।
হাসপাতালে ভর্তি দেলোয়ার হোসেন বাগেরহাট ইনফোকে বলেন, গতকাল রাতে কয়েকজন যাত্রী নিয়ে ফয়লা এলাকায় যাচ্ছিলেন তিনি। এসময় যাত্রীবেশী অজ্ঞানকারী দুর্বৃত্ত চক্র অজ্ঞান করে রাস্তার পাসে ফেলে রেখে গাড়ীটি নিয়ে পালিয়ে।
পরে স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে।
গত সপ্তাহে একই ভাবে মাহেন্দ্র গাড়ি হারিয়েছেন ফকিরহাটের নওয়াপাড়া গ্রামের ফেরদাউস মল্লিক ও পিলজংগ গ্রামের আকবার সরদার সোহাগ।
এদিকে সদর উপজেলার চুলকাঠি বাজার এলাকা হতে এক নছিমুল চালক মামুন মোল্ল্যার (১৭) ভাড়া নিয়ে খুলনায় উদ্যেশ্যে যাত্রা করে গত এক সপ্তাহ ধরে নিখোঁজ রয়েছে বলে জানিয়েছেন তার পরিবার।
হত দরিদ্র মামুনের পিতা মোল্ল্যা আব্দুল্লা জানান, প্রতিদিনের ন্যায় গত ১লা অক্টোবর (রবিবার) রাতে চুলকাঠি বাজার এলাকায় নছিমুন চালাতে আসে। এসময় কয়েকজন যাত্রী তাকে খুলনায় নিয়ে যাওয়ার জন্য ৪শত টাকা ভাড়া ঠিক করে নিয়ে যায়।
কিন্তু এক সপ্তাহ পার হলেও ছেলে মামুন এখনও ফিরে না আসেনি।
এঘটনায় গত ৩রা অক্টোবর বাগেরহাট সদর থানায় একটি সাধারন ডাইরী (১৩৬) করেছেন মামুনের পিতা।
একের পর এক মহাসড়ক হতে এভাবে নছিমুন, মহেন্দ্র ও ইজিবাইক চুরি ছিনতাই ও অজ্ঞান করে নিয়ে যাবার ঘটনায় চালক মালিকদের মাঝে চরম আতংক বিরাজ করছে।
এবিষয়ে বাগেরহাট হাইওয়ে থানার সাথে যোগাযোগ করা হলে তারা বিষয়টি নিয়ে  প্রথমে স্থানীয় থানা পুলিশেরে সাথে কথা বলতে বলেন। পরে অবশ্য এবিষয়ে কথা বলতে রাজি হন থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা। তিনি জানানবাগেরহাট ইনফোকে জানান, এসব চুরি ও ছিনতাই এর ঘটনা গুল ঘটছে মুলত মহাসড়কের সংযোগ সড়ক গুলোতে। যা হাইওয়ে থানার অন্তর্গত নয়।
তিনি বলেন, জেলার মহাসড়ক গুলাতে তাদের নিয়মিত টহল রয়েছে। তাই মহাসড়কে দিনে বা রাতে ছিনতাই বা চাঁদা বাজির কোন ঘটনা নেই। তবে কিছু কিছু এধরনের ঘটনা তারা শুনেছেন যার কয়েকটির বিষয়ে স্থানীয় থানা গুলতে মামলাও হয়েছে।

০৮ সেপ্টেম্বর ২০১৩ :: ইনজামামুল হক, নিউজ করেসপন্ডেন্ট,
বাগেরহাট ইনফো ডটকম।। 

ইনফো ডেস্কWriter: ইনফো ডেস্ক (1855 Posts)