ফেঁসে গেলেন বিএনপি-জামায়াতের ৩৫ নেতাকর্মী

মংলা উপজেলা আওয়ামীলীগ কার্যালয়ে আগুন দেওয়ার ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ছাত্রদলের দুই কর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এঘটনায় অজ্ঞাতনামা আরও ৩৫ বিএনপি-জামায়াত নেতাকর্মীদের আসামী করে মামলা করা হয়েছে।

Bagerhat-District-Mapআটককৃতরা হলেন, মংলার সামছুর রহমান রোডের মৃত নাছির উদ্দিনের ছেলে মহিম আহম্মেদ তন্ময় (২০) এবং পশ্চিম শেহালাবুনিয়া এলকার মৃত মাহাবুবুর হকের ছেলে আরজু হক (২০)।

থানা পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, সোমবার সকালে ওই দুই ছাত্রদল কর্মী আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। রবিবার বিকালে শহরের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদেরকে আটক করা হয়।

উল্লেখ, শনিবার দিবাগত গভীর রাতে মংলা শহরের প্রাণ কেন্দ্রে অবস্থিত উপজেলা আওয়ামীলীগ কার্যালয়ে আগুন দেয় দুর্বৃত্তরা। তবে বড় ধরণের কোন ক্ষয়ক্ষতি হয় নি।

মংলা থানার সেকেন্ড অফিসার মঞ্জুর ইলাহি বাগেরহাট ইনফোকে জানান, শনিবার দিবাগত রাত আনুমানিক সাড়ে ১২টার দিকে  দুর্বৃত্তরা শহরের শেখ আ.হাই সড়কে অবস্থিত আওয়ামীলীগ কার্যালয়ের খোলা জানালা দিয়ে পেট্টোল ঢেলে আগুন ধরিয়ে দিয়ে নাশকতার চেষ্টা চালায়।

পরে  পুলিশ এসে কার্যালয়ের তালা ভেঙ্গে আগুন নিয়ন্ত্রণে নেয়।

তিনি আরো জানান, ওই ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে রোববার বিকালে ছাত্রদলে দুইকর্মীকে আটক করা হয়।

পরে রোববার রাতে তারাসহ (দুই ছাত্রদল কর্মী) ৩০-৩৫ অজ্ঞাতনামা বিএনপি-জামায়াত উচ্ছৃঙ্খল নেতাকর্মীর নামে মামলা করা হয়েছে।

মংলা থানা যুবলীগের সভাপতি ইব্রাহিম হোসেন বাগেরহাট ইনফোকে বলেন,  আগুনে কার্যালয়ের চেয়ার ও টেবিল পুঁড়ে গেছে। তবে পুলিশের তাৎক্ষণিক পদক্ষেপে বড় ধরণের নাশকতা থেকে রক্ষা পাওয়া গেছে।

এদিকে এ মামলার ফেঁসে যাওয়ার ভয়ে বিএনপির- জামায়াতের অধিকাংশ নেতা কর্মী গা ঢাকা দিয়েছে বলে দলীয় সূত্রে জানা গেছে।

০২ ডিসেম্বর ২০১৩ :: স্টাফ করেসপন্ডেন্ট মংলা,
বাগেরহাট ইনফো ডটকম।।
এমএম ফিরোজ/এসআই হক-নিউজ ডেস্ক/বিআই
ইনফো ডেস্কWriter: ইনফো ডেস্ক (1855 Posts)