নিহত ব্যক্তি মামুন, দেড় মাস আগে আটকের অভিযোগ

সিনিয়র স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাগেরহাট ইনফো ডটকম

gunfight-Gun-Fight-Cross-fir.বাগেরহাটের রাখালগাছি এলাকায় পুলিশের সঙ্গে কথিত ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত অজ্ঞাত ব্যক্তি আব্দুল্লাহ আল মামুন (৪২) বলে সনাক্ত করে তার পরিবার বলছে, দেড় মাস আগে পুলিশ তাকে বাড়ি থেকে আটক করে নিয়ে যায়।

বাগেরহাট শহরের বাসাবাটি পালপাড়া এলাকার বাসিন্দা সরদার আশরাফ হোসেন ও তার পরিবারের কয়েক সদস্য রোববার (২৭ নভেম্বর) খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে মামুনের মরদেহ সনাক্ত করেন।

এর আগে শনিবার গভীর রাতে সদর উপজেলার রাখালগাছি বাজারের কাছে পুলিশের সঙ্গে গোলাগুলিতে অজ্ঞাত এক ব্যক্তি নিহত হয়। যাকে নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন জেএমবি’র সদস‌্য বলে দাবি করে পুলিশ।

তবে খুলনা মেডিকেল মর্গে ছেলের মরদেহ সনাক্ত করে সরদার আশরাফ হোসেন মোবাইলে বাগেরহাট ইনফো ডটকমকে বলেন, তার ছেলে আব্দুল্লাহ আল মামুন ঠিকাদারী করতেন। এছাড়া ঢাকায় তার আবাসন ব্যবসাও ছিলো। মামুন বিবাহিত এবং তার আড়াই বছরের একটি মেয়ে আছে।

মামুনের বাবার অভিযোগ, গত ১১ অক্টোবর দুপুরে সাদা পোশাকে পুলিশ মামুনকে বাড়ি থেকে ফোনে ডেকে নিয়ে আটক করে। আটকের পর পুলিশ বাড়ি এসে তার ব্যবহৃত ল্যাপটপও নিয়ে যায়। পরে বিভিন্ন ভাবে তিনি ছেলের খোঁজ করলে পুলিশ আটকের কথা অস্বীকার করে।

১৮ অক্টোবর ছেলে নিখোঁজের বিষয়ে তিনি বাগেরহাট মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী (জিডি) করেন।

সরদার আশরাফ বলেন, ছেলে নিখোঁজ হওয়া এবং সাদা পোষাকের পুলিশ তার ছেলেকে ধরে নিয়ে যাওয়ার বিষয়ে তিনি গত ২৬ অক্টোবর বাগেরহাট প্রেসক্লাবে এবং গত ১৩ নভেম্বর খুলনা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে ছেলেকে ফিরে পেতে সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহ্বান জানান।

তিনি খুলনায় পুলিশের কাছ থেকে ছেলের লাশ দাফনের জন্য বুঝে নেয়ার প্রক্রিয়ায় ব্যাস্ত জানিয়ে বলেন, সে (মামুন) জেএমবি’র সাথে জড়িত কী না সে বিষয়ে তিনি কিছুই জানেন না।

বাগেরহাটের পুলিশ সুপার পংকজ চন্দ্র রায় সন্ধ্যায় এই প্রতিবেদককে বলেন, ‘আব্দুল্লাহ আল মামুন নামে এক ব্যাক্তি নিখোঁজ হয়েছেন জানিয়ে তার পরিবার গত মাসে বাগেরহাট মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেছিলেন। ঐ সাধারণ ডায়েরীর সূত্র ধরে তার খোঁজ খবর করতে যেয়ে আমরা মামুন সম্পর্কে বেশ কিছু তথ্যও পেয়েছি। সেসব তথ্য যাচাই বাছাই চলছে। কিন্তু সাদা পোষাকে পুলিশ তার ছেলেকে ধরে নিয়ে গেছে বলে সরদার আশরাফ হোসেন যে অভিযোগ করছেন সেটা সত্য না।’

এসপি আরও বলেন, ‘বন্দুকযুদ্ধে নিহত ব্যাক্তি যে সরদার আশরাফ হোসেনের ছেলে আব্দুল্লাহ আল মামুন তা আনুষ্ঠানিকভাবে আমরা এখনও জানি না। খুলনা থেকে সংশ্লিষ্ট থানার পুলিশ বা মামুনের পরিবার এ বিষয়ে আমাদের সাথে এখনও কোন কথা বলেননি।’

〉〉 বাগেরহাটে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ সন্দেহভাজন জেএমবি সদস্য নিহত

এএইচ/এসআই/বিআই/২৮ নভেম্বর, ২০১৬

বাগেরহাট ইনফো নিউজWriter: বাগেরহাট ইনফো নিউজ (1300 Posts)