শরণখোলায় সুন্দরবন সংলগ্ন এলাকার পুকুরে কুমিরের সন্ধান, স্থানীয়দরে দাবি পাচাকারী চক্রের কারসাজি

বাগেরহাটের শরণখোলা উপজেলার সুন্দরবন সংলগ্ন তাফালবাড়ী বাজার এলাকায় একটি পুকুরে কুমিরের সন্ধান পাওয়া গেছে।

তিন-চারদিন আগে এলাকাবাসী পুকুরে কুমিরটি দেখতে পেলেও সেটি উদ্ধার নিয়ে ধুম্রজাল সৃষ্টি হয়েছে। ফলে বর্তমানে কুমির আতঙ্কে রয়েছেন ওই এলাকার বাসিন্দারা।

ঘনবসতিপূর্ণ এলাকার পুকুরে কুমিরটি কিভাবে এলো এনিয়ে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চলরে সৃষ্টি হয়েছে। এলাকাবাসি বলছে, কুমিরটি পাচারের উদ্দেশে সুন্দরবন থেকে ধরে আনা হয়েছে। পাচারকারীরা সামলাতে না পেরে কুমিরটিকে ওই পুকুরে ছেড়ে দেয়।

নাম প্রকাশে অনেচ্ছুক স্থানীয় কয়েক ব্যক্তি বাগেরহাট ইনফোকে অভিযোগ করে বলেন, স্থানীয় প্রভাবশালী ও অবসরপ্রাপ্ত এক বনরক্ষী বন্যপ্রাণী পাচারের সঙ্গে জড়িত। ওই ব্যক্তি শিকারী চক্রের মাধ্যমে কুমিরটি এনে সামলাতে না পেরে পরে সেটি পুকুরে ছেড়ে দেয়।

বনবিভাগ বলছে, তিন-চারদিন আগে কুমিরটি দেখতে পেয়ে তাদেরকে জানায় এলাকাবাসী। এর পর থেকে পুকুরটি বনবিভাগের নজরদারীতে রাখা হয়েছে। যে কোনোভাবে কুমরটি ধরার চেষ্টা চলছে।

পূর্ব সুন্দরবন বনবিভাগের শরণখোলা রেঞ্জের সন্ন্যাসী মোবাইল টিমের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সোয়েব খান বাগেরহাট ইনফোকে জানান, পাচারকারীদের কেউ কুমিরটি ওই পুকুরে ফেলে যেতে পারে। বনবিভাগের পক্ষ থেকে কুমিরটি উদ্ধারের চেষ্ঠা চলছে।

৩০০৬-২০১৩ ::  নিউজ করেসপন্ডেন্ট,
বাগেরহাট ইনফো ডটকম।।

ইনফো ডেস্কWriter: ইনফো ডেস্ক (1855 Posts)